আমন চাষ নিয়ে দুশ্চিন্তায় চিলমারী কৃষক

0
75

চিলমারী প্রতিনিধি:
দেখা দিয়েছে চারা সংকট সেই সাথে আমন চাষ নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়েছে এই এলাকার কৃষক। কুড়িগ্রামের চিলমারীতে দেখা দিয়েছে আমনের চারা সংকট। বন্যার পানি নেমে গেলেও প্রয়োজনীয় চারা না পাওয়ায় কৃষকরা এখন দিশাহারা হয়ে পড়েছেন।
চিলমারীতে বন্যার পানি নেমে যাওয়ায় জমিগুলো জেগে উঠেছে। এসব জমিতে ঘাস, কচুরিপানা ও বিভিন্ন আগাছা জমে অতি গরমে তা পচে সৃষ্টি হয়েছে দূর্গন্ধ। দূর্গন্ধ পরিবেশেও দরিদ্র কৃষকরা ইতোমধ্যে আগাছা পরিষ্কারে লেগে পড়েছেন আবার অনেকে লাগানো শুরু করেছেন। কিন্তু আমনের চারা সংকট তাদের দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। বন্যার আগে বপন করা বীজ পচে নষ্ট হওয়ায় এ সংকট চরম আকার ধারণ করেছে। উপজেলার রাজারভিটা এলাকার কৃষক শহিদুল জমির আগাছা পরিস্কার করছিলেন এসময় কথা হলে দুঃখ করে বলেন বাবারে কি শুনবের চান কত টাকা পয়সা খরচ করে আমন ধান লাগিয়ে ছিলাম বন্যায় সব শেষ হইলো এখন চারাও পাওয়া যাচ্ছে না। রমনা বাজার এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, বেশ কিছু কৃষক আগাছা পরিস্কার করছেন।
কাজ করতে করতে তারা জানান, কামলা নিতে না পেরে নিজেই জমি পরিষ্কার করছেন। কিন্তু আমনের চারা বন্যায় পচে যাওয়ায় চিন্তায় পড়েছেন। শুধু আমিনুল আর আঃ রউফ নয় হাজার হাজার কৃষক এখন আমন চারা সংকটে হতাশায় ভূগছেন। কৃষকরা আরো জানান, দূর-দূরান্ত থেকে চরা মূল্যে চারা সংগ্রহ করতে হচ্ছে। উপজেলার থানাহাট, জোড়গাছ, বালাবাড়ি, রানীগঞ্জ, ফকিরের হাট, গাবেরতল সহ বিভিন্ন এলাকা ঘুরে একই চিত্র দেখা গেছে।
উপজেলা কৃষি অফিসার জানান, নতুন করে বন্যা না হলে কৃষকরা ক্ষতি পুষিয়ে নিতে পারবেন। অফিস সূত্রে জানা গেছে করা চলতি মৌসুমে আমনের লক্ষ মাত্রা ৭হাজার ৮৩০ হেক্টর ধরা হয়েছে। ইতোমধ্যে কিছু জমিতে চারা রোপণ করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here